মেডিকেল ভর্তি প্রস্তুতির জন্যে কোন কোচিং ভালো হবে

মেডিকেল ভর্তি প্রস্তুতির জন্যে কোন কোচিং  ভালো হবে
মেডিকেল ভর্তি প্রস্তুতির জন্যে কোন কোচিং ভালো হবে

মেডিকেল ভর্তি প্রস্তুতির জন্যে কোন কোচিং ভালো হবে

মেডিকেল ভর্তি প্রস্তুতির জন্যে ভাল কোচিং বলে কিছু নেই।সব কোচিং সব কোচিং ই ভালো, প্রত্যেকটা কোচিং এর স্পেসিফিক কিছু ভালো দিক আছে, যা হয়ত অন্যটির নেই। সবাই ভালো পড়ায়। তাহলে আপনি কোন কোচিং এ ভর্তি হবেনা এটাই ত ভাবতেছেন, সম্পুর্ন আর্টিকেল পড়ুন তাহলেই বুঝে যাবেন আপনার জন্যে কোন কোচিং ভালো হবে।

মেডিকেল ভর্তি প্রস্তুতির ভালো কোচিং এর বৈশিষ্ট্য

  1. নির্দিষ্ট একটি লেকচার প্লান থাকবে, এবং সময়মত তা শেষ করে দিবো।
  2. সাবজেকট ভিত্তিক ট্রেইনিং সম্পন্ন আলাদা আলাদা শিক্ষক থাকবে, যারা অবশ্যই মেডিকেল স্টুডেন্ট/ডাক্তার (যেহেতু মেডিকেল ভর্তি কোচিং)।
  3. রেগুলার এসেসমেন্ট/পরীক্ষা নিবে
  4. পরীক্ষার ফলাফল অভিভাবক দের জানাবে।
  5. কোন প্রব্লেম থাকলে তা ক্লাসে স্যারের কাছে প্রশ্ন করে জেনে নিবে এবং স্যাররা তা আন্তরিক ভাবে শিখিয়ে দিবেন

উপরোক্ত বৈশিষ্ট্য থাকলেই আমরা ভালো কোচিং বলে বুঝি। এই গুন গুলো প্রায় সব মেডিকেল ভর্তি কোচিং গুলোর রয়েছে। তবে ইতিহাস ঐতিহ্য মার্কেটিং এ যারা এগিয়ে আমরা শুধু সেগুলোকেই ভালো মনে করি। তারা অবশ্যই ভালো তবে অনেক নতুন কোচিং এবং প্রাইভেট গুলো অনেক ভালো করতেছে।

সর্বপরি একটি কথা মনে রাখবেন, আপনার বাবা মা আপনাকে হাটতে শিখিয়েছেন, কিন্তু দৌড়ানোটা আপনার নিজে নিজে শিখতে হয়েছে।

__নোমান ইসলাম নিরব

মেডিকেল ভর্তি প্রস্তুতি কোচিং গুলো আপনাকে রাস্তা দেখাবে কোন রাস্তাহ হাটলে মেডিকেলে চান্স পাবেন, ঐ রাস্তায় দৌড়াতে হবে আপনার নিজের। তাই সব কোচিং ভালো আগে নিজে দৌড়ানোর প্রস্তুতি নিন, তাহলে আপনি যেকোন কোচিং থেকে যেকোন এলাকা থাকে পড়ালেখা করে মেডিকেল ভর্তি পরীক্ষায় চান্স পাবেন ইনশাআল্লাহ।

অনেকেই ভাবে ঢাকা বেস্ট আসলেই কি তাই?
আমি বলি, না ঢাকা সবার জন্যে বেস্ট নয়। যেই ছেলেটা লালমনিরহাট,দিনাজপুর, বান্দরবান, নওগা ইত্যাদি পেরিফেরাল এলাকার গুলোর অনেকেই ভাবে ঢাকায় কোচিং করলে চান্স নিশ্চিত, এটা ভুল আপনার মনের শান্তি ছাড়া কিছুই না। আপনি যখন পেরিফেরাল এলাকা থেকে ঢাকায় গিয়ে কোচিং শুরু করবেন, ঢাকার পরিবেশের সাথে খাপখাইয়ে নিতে অনেকটা সময় চলে যাবে, ঢাকায় জীবনযাত্রার মান বেশি, সবাই খরচ সামলাতেও পারেনা। তাই যাদের এবিলিটি কম, তারা আপনার কাছে যেকোন মেডিকেল ভর্তি কোচিং এ ভর্তি হয়ে পাগলের মত পড়ালেখা শুরু করে দিন। দিন শেষে আপনিই হবেন বিজয়ি।

মনে রাখবেন,আসলে কোচিং হলো গাইডলাইন দেয়ার একটা মাধ্যম মাত্র, এছাড়া কিচ্ছু নয়।
কোচিং যাচাই বাছাই ভাবনা না ভেবে পড়ালেখার উপর গুরুত্ব দিন। সিলেবাস তো জানেন, বায়োলজি, কেমিস্ট্রি, ফিসিএক্স,ইংলিশ, সাধারণ জ্ঞান এগুলো পড়তে থাকুন, যেকোন প্রাইভেট কোচিং এ ভর্তি হতে পারেন, তবে কোচিং বা প্রাইভেট যেখানেই পড়েন না কেন, আপনি যদি না পড়েন, তাহলে কিন্তু চান্স পাবেন না। আর তাদের পরীক্ষা গুলো নিয়মিত দিবেন। এর মাদ্ধমে আপনার দুর্বল জায়গাগুলো বের করে সেখানে দুর্বলতা দূর করুন।
কোন কিছু জানার থাকলে আমাদের পেজে মেসেজ করুন অথবা আমাদের ফেসবুক গ্রুপ এ পোস্ট করুন।

Leave a Comment